রবিবার, ২৯ মার্চ , ২০২০. ৭:১৪ অপরাহ্ণ,
Home জাতীয় সংবাদ সরিষাবাড়ীতে মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক আব্দুল মালেকের মৃত্যু বার্ষিকী পালিত

সরিষাবাড়ীতে মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক আব্দুল মালেকের মৃত্যু বার্ষিকী পালিত

সরিষাবাড়ীতে মুক্তিযুদ্ধের সংগঠক আব্দুল মালেকের মৃত্যু বার্ষিকী পালিত
Spread the love

ষ্টাফ রিপোটার জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ঠ সহচর,বঙ্গবন্ধুর পার্লামেন্টের দু-বারের সংসদ সদস্য,উপজেলা আওয়ামী লীগের অর্ধ শতাব্দীর সভাপতি মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক,সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মালেকের ৪র্থ মৃত্যুবার্ষিকী পালিত হয়েছে। রোববার (১৯ জানুয়ারি)সকালে কামরাবাদ মরহুমের কবরে পুস্পস্তবক অর্পণ,পৌরসভার শিমলা বাজার বাস ভবনে কোরআন খানি,সরিষাবাড়ী হাফিজিয়া মাদ্রাসায় মিলাদ ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়।মরহুমের কবরে উপজেলা আওয়ামী লীগ এবং এর অংগ সংগঠন,এলাকার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসহ বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক মোনাজাত করেন।
সরিষাবাড়ী আওয়ামী রাজনীতির বটবৃক্ষ মরহুম আব্দুল মালেকের কবরে পুস্পস্তবক অর্পন শেষে মিলাদ ও দোয়া মাহফিলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ছানোয়ার হোসেন বাদশা,মরহুমের ছেলে বাংলাদেশ আওয়ামী স্বেচ্ছা সেবকলীগের সাবেক পানি বিষয়ক সম্পাদক প্রকৌশলী মাহবুবুর রহমান হেলাল,বড় মেয়ে ডাঃ রোকসানা ফেরদৌস,মেঝ কণ্যা ডাঃ মাহমুদা নাসরিন,ছোট বণ্যা ডাঃ মমতাজ পারভীন,জেলা আওয়ামী লীগের উপদপ্তর সম্পাদক এ্যাডভোকেট জহুরুল ইসলাম মানিক,উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা এম এ লতিফ,মনির উদ্দিন, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি সৈয়দ তানভীর আহমেদ,উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সভাপতি ফরিদুল ইসলাম,সাধারন সম্পাদক মঞ্জুরুল ইসলাম বিদ্যু,উপজেলা স্বেচ্ছা সেবক লীগের সাধারন সম্পাদক অধ্যাপক মামুন অর রশীদ,জেলা ছাএলীগের সাধারন সম্পাদক মাকসুদ বিন জালাল প্লাবন প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন।
মরহুম আব্দুল মালেক ১৯৬৮ সাল থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতির হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৭০ সালে বঙ্গবন্ধুর পার্লামেন্টে দুই দুই বার সংসদ সদস্য ও মুক্তিযুদ্ধকালীন ভারতÑবাংলাদেশ যৌথ ক্যাম্পের মহেন্দ্রগঞ্জ ক্যাম্পের নির্বাচিত সভাপতি ছিলেন।২০০৯ সালে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।তিনি মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক ছিলেন।২০১৬ সালের ১৯ জানুয়ারী বার্ধক্যজনিত কারণে মৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ৬ ছেলে, ৩ মেয়েসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।
এ ব্যাপরে পৌর আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি ও উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ডের সাধারন সম্পাদক মঞ্জুরুল ইসলাম বিদ্যু তার পিতার ৪র্থ মুত্যু বার্ষিকীকে উপজেলা আওয়ামী লীগ এবং এর অংগ সংগঠন,এলাকার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান,বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতা-কর্মী অংশ গ্রহনকারীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন।


Spread the love