বৃহস্পতিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি , ২০২০. ১:৫৪ পূর্বাহ্ণ,

Spread the love

ইসমাইল হোসেন সরিষাবাড়ী(জামালপুর)প্রতিনিধিঃ জামালপুরের সরিষাবাড়ী পৌরসভার ৩ নং ওয়ার্ড় বলারদিয়ার এলাকায় ব্যাপক উন্নয়নের অবদান রাখার জন্য গত ৪ অক্টোবর/১৯ ইং তারিখে যে গণ সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে পৌর মেয়র রোকনুজ্জামান রুকনকে। তা সত্যিই যথাযোগ্য নয় বলে অভিযোগ তুলেছেন একই এলাকার বলারদিয়ার উত্তরপাড়াবাসী। কারণ ৩নং ওয়ার্ড়ে দৃশ্যমান হওয়ার মত বলারদিয়ার কাউন্সিলর নূরুল ইসলামের বাড়ী হতে খালপাড় হয়ে নাপিত বাড়ী পর্যন্ত মাত্র ৯শ মিটার রাস্তার কাজ বাস্তবায়িত হয়েছে। তাছাড়া কোথাও আর কোন কাজ হয়নি বলে জানান এলাকাবাসী। এদিকে খালপাড় দিয়ে পৌর মেয়র রোকনুজ্জামান রুকন সৌন্দর্য্য বর্ধনের জন্য কয়েকটি ছাতাসহ বসার স্থান এবং ৪টি গোসলের ঘাট বানিয়েছেন। তবুও নির্মাণাধীন বলে জানা যায়। বলারদিয়ার উত্তরপাড়া বাসী বলেন কেন বলারদিয়ারের পক্ষ থেকে মেয়র রোকনুজ্জামান রুকনকে গণ সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে তা আমাদের বোধগম্যে আসে না। কারণ এখনও পর্যন্ত চাইন্দার মোড় হতে বালিয়া ব্রীজপাড় পর্যন্ত এবং চাইন্দার মোড় হতে সেলিমের ইটভাটা হয়ে নূরুল ইসলাম কাউন্সিলরের বাড়ী পর্যন্ত রাস্তাটি বিভিন্ন স্থানে খানাখন্দর বলে জানা যায়। বিশেষ করে চাইন্দার মোড় হতে বালিয়া ব্রীজপাড় পর্যন্ত রাস্তাটি যেন একটি মৃত্যুর ফাঁদ। এই রাস্তাটিতে প্রায়ই এক্সিডেন্ট হচ্ছে বিভিন্ন যানবাহন। এলাকাবাসী জানান এই রাস্তাটি এবারের বন্যায় ভেঙ্গে যাওয়ার পর বহুবার কাউন্সিলর নূরুল ইসলাম কাছে যাওয়া ও বলা হয়েছে রাস্তাটি মেরামতের জন্য তবুও তিনি মেরামত করেনি।পরিশেষে নিরুপায় হয়ে এলাকার জনগণ ও অটোরিক্সা চালকেরা নিজেস্ব অর্থায়নে ও স্বেচ্ছায় শ্রম দিয়ে রাস্তাটি মেরামত করে কিছুটা শযাতায়াতের উপযোগী করে তুলেছেন বলে জানান অটোচালকেরা । এদিকে এলাকায় জনগণের ভোগান্তি নিরসন না করে। মেয়রের অর্থায়নে মেয়রকেই গণ সংবর্ধনা দিয়েছে কাউন্সিলর নূরুল ইসলাম বলে বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়। তাই অন্তরালের গুণীমহল বলছে, জোর করে যেমন ভালবাসা পাওয়া যায়না, তেমনি টাকার বিনিময়ে সামাজিক মর্যাদা চিরস্থায়ী হয়না। কঠোর পরিশ্রম ও সততা দিয়ে অর্জন করতে হয় জীবনে সফলতা।


Spread the love